বরিশালে পারাবত ১২ লঞ্চের ক্যাফে শাওনকে ১৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। অভিযোগকারী ভোক্তাকে ১৫ হাজার টাকা জরিমানার ২৫% অর্থ ৩ হাজার ৭ শত ৫০ টাকা প্রদান করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর ২০১৯) জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর বরিশাল জেলা কার্যালয়ে অভিযোগকারী ও অভিযুক্ত প্রতিষ্ঠান প্রতিনিধির উপস্থিতিতে শুনানিঅন্তে এই জরিমানা করা হয়।

অভিযোগকারীর অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, পারাবত-১২ লঞ্চের ক্যাফে শাওন গত ১৬ সেপ্টেম্বর একজন ভোক্তার নিকট ১৫ টাকার মিনারেল ওয়াটার ২৫ টাকায় বিক্রয় করে এবং মূল্য তালিকা অপেক্ষা ৩০ টাকা বেশি দামে কোয়ার্টার মুরগির মাংস বিক্রয় করে। এ ঘটনায় বরিশাল জেলা কার্যালয়ে ভুক্তভোগী ভোক্তা পারাবত-১২ লঞ্চের ক্যাফে শাওন এর বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর বরিশাল জেলা কার্যালয়ে সহকারী পরিচালক মোঃ শাহ শোয়াইব মিয়া জানান সর্বোচ্চ খুচরা বিক্রয় মূল্য এবং মূল্য তালিকা অপেক্ষা অতিরিক্ত মূল্যে মিনারেল ওয়াটার ও এক কোয়ার্টার মুরগির মাংস বিক্রয়ের বিষয় টি প্রমাণিত হওয়ায় ক্যাফে শাওন পারাবত-১২ কে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন,২০০৯ অনুযায়ী ১৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।তিনি আরো জানান পণ্য বা সেবা খরিদ করে প্রতারিত হলে কারণ উদ্ভব হওয়ার ৩০ দিনের মধ্যে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরে ভোক্তা লিখিত অভিযোগ দায়ের করতে পারে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে আইন অনুযায়ী জরিমানার ২৫% অর্থ অভিযোগকারী ক্রেতাকে প্রদান করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here