পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় কুপিয়ে জখম করা হয়েছে ছাত্রলীগ ক্যাডার রায়হান (২৬) ও সহযোগী হাসানকে (২৩)। রায়হানের অবস্থা খুবই শঙ্কাজনক। স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে প্রথমে কলাপাড়া হাসপাতালে নেয়া পর প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে শঙ্কাজনক হওয়ায় বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। সেখান থেকে জরুরিভাবে ঢাকায় প্রেরন করা হয়।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে আট টায় কলাপাড়া উপজেলার তেগাছিয়া বাজারে সশস্ত্র এ হামলার ঘটনা ঘটে।

আহতরা জানায়, একই এলাকার রাকিবুল মাদবরের নেতৃত্বে তার ছয়-সাত সহযোগী চাপাতির উপর্যুপরি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করা হয় রায়হান ও হাসানকে। রায়হানের বাম হাতের রগ কেটে ফেলা হয়েছে। ডান হাত, পেটে ও পায়ে আরও পাঁচটি গুরুতর কোপের জখম রয়েছে। এছাড়া হাসানের পিঠে দুইটি গুরুতর কোপের আঘাত রয়েছে। আহতরা জানায় খুনের উদ্দেশ্যে তাঁদের ওপর সশস্ত্র হামলা করেছে।

স্থানীয়রা জানায়, আধিপত্য, দলের পদ প্রত্যাশীর লড়াই ও মাদক ব্যবসার ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে বিরোধকে ঘিরে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ ইউপি মেম্বার ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন বয়াতি ও হাবিব নামের অপর এক ব্যক্তিকে বৃহস্পতিবার রাতে গ্রেফতার করেছে।

অপরদিকে রায়হান সমর্থকরাও রাকিবকে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে বলে কলাপাড়া থানার ওসি মো. মনিরুল ইসলাম নিশ্চিত করেছেন।

তাকে প্রথমে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পরে তাকেও অবস্থা সঙ্কটাপন্ন হওয়ায় ঢাকায় পাঠানো হয়। বর্তমানে এ ঘটনায় তেগাছিয়া বাজারে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here