পিরোজপুর প্রতিনিধি :: পিরোজপুর সদর উপজেলায় ‘চাঁদা না দেওয়ায়’ এক ওষুধ বিক্রেতাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

আজ শনিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সকালে চলিশা বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

সদর থানার এসআই মো. জাফরুল হাসান জানান, টাকা-পয়সার লেনদেনের বিষয় নিয়ে হত্যাকাণ্ডের এ ঘটনা ঘটেছে বলে তারা প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছেন।

নিহত কামরুল শেখ (৩৫) সদর উপজেলার চলিশা গ্রামের আব্দুল মান্নান শেখের ছেলে। চলিশা বাজারে একটি ওষুধের দোকান চালাতেন তিনি।

কামরুলের ভাই মাসুদ শেখ অভিযোগ করেন, “কয়েক দিন ধরে সদর উপজেলার সাতবেকুটিয়া গ্রামের আলতাফ শেখের ছেলে শাকিল মিয়া চাঁদা দারছিলেন কামরুলের কাছে।

“চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় শনিবার সকালে শাকিল ও তার লোকজন কামরুরেল বুকে ও মাথায় ছুরি দিয়ে কুপিয়ে আহত করে। স্থানীয়রা তাকে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।”

হাসপাতালে আনার আগেই কামরুল মারা যান জানিয়েছেন ওই হাসপাতালের চিকিৎসক আরিফ হাসান।

তিনি বলেন, অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি রক্তাক্ত ছুরি উদ্ধার করেছে।

এসআই জাফরুল বলেন, “টাকা-পয়সার লেনদেনের বিষয় নিয়ে হত্যাকাণ্ডের এ ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানাগেছে। খবর পেয়েই পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। কামরুলের ওপর যে ছুরি দিয়ে হামলা করা হয়েছে পুলিশ সেটা উদ্ধার করেছে। আর অভিযুক্তদের আটকের চেষ্টা চলছে।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here