বিয়ে মানে জীবনের নতুন অধ্যায়। এর মাধ্যমে দুজন নর-নারীর মধ্যে রচিত হয় চিরস্থায়ী এক সম্পর্ক, যা দুটি পরিবারকে কাছে টেনে আনে।

কিন্তু বর্তমানে অনেকের কাছে এসব বিষয়ের চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ জাঁকালো আয়োজন, মেক-আপ ও ছবি তোলা।
সাম্প্রতিক এক ঘটনায় বিষয়টি আবারও স্পষ্ট হলো। বর ফটোগ্রাফার জোগাড় করতে না পারায় বিয়ে বাতিল করলেন কনে। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের উত্তরপ্রদেশে, কানপুরে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, দেহাটের মঙ্গলপুরে এক কৃষকের মেয়ের সঙ্গে ভোগনিপুরের পাত্রের বিয়ের আয়োজন চলছিল।

কনের বাবা বিয়ে উপলক্ষে অনেক খরচ করে সব আয়োজন করেন। বিয়ের দিন সময় মতো হাজির হয় বরপক্ষ। কনের পরিবারও তাদের স্বাগত জানায়।

কিছুক্ষণ পর মালাবদলের জন্য কনে এবং বর মঞ্চে ওঠেন। এরপর কনে স্টেজের চারিদিকে তাকাতে থাকেন। কিন্তু কোনো ফটোগ্রাফার দেখতে না পেয়ে বুঝতে পারেন, তার জীবনের স্মরণীয় মুহূর্ত ধরে রাখার জন্য কোনো ব্যবস্থা করা হয়নি। সঙ্গে সঙ্গেই বিয়েতে অস্বীকৃতি জানান তিনি। শুধু তাই নয়, বিয়ের মঞ্চ থেকে নেমে চলে যান এক প্রতিবেশির বাড়িতে।

এরপর সবাই মিলে কনেকে বোঝানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু তার সাফ কথা, যে মানুষটা আমাদের বিয়ের বিষয়েই যত্ন নেয়নি, সে ভবিষ্যতে কীভাবে আমার দেখভাল করবে? পরিবারের বড়রাও তাকে বোঝানোর চেষ্টা করেন। তবে কোনো কথাই শুনতে রাজি হননি কনে।

পরবর্তীতে এ ঘটনা থানা পর্যন্ত গড়ায়। তবে দুই পক্ষ সমঝোতা করে ব্যাপারটা মিটিয়ে নেয়। ঠিক হয়, বরপক্ষকে খরচের ক্ষতিপূরণ দিয়ে দেওয়া হবে। বরপক্ষও মিটিয়ে দেবে পাওনা। তবে একটি ফটোগ্রাফারের জন্য যে বিয়ে ভাঙতে পারে, তা এখনো বিশ্বাসই করতে পারছেন না অনেকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here