SONY DSC

জমি বিরোধের জের ধরে বরিশাল সদর উপজেলা বন্দর থানাধীন টুঙ্গিবাড়িয়ার পতাং এলাকায় বিধবা হালিমা বেগমসহ একই পরিবারের ৩ জনকে পিটিয়ে আহত করেছে সন্ত্রাসীরা।

শনিবার (১৯ জানুয়ারি) সকাল ১০টায় টুঙ্গিবাড়িয়ার পতাং এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলোঃ মৃত দুলাল নপ্তির স্ত্রী হালিমা বেগম, মেয়ে পারুল বেগম ও গোলেনুর বেগম। এদের মধ্যে গুরুতর অবস্থায় হালিমা বেগমকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত’র স্বজনরা জানান, দীর্ঘদিন ধরে চাচা শ্বশুড় আফেজ নপ্তির ও তার ছেলে আমিন নপ্তি, ফারুক নপ্তি, কাশেম নপ্তির সাথে হালিমা বেগমের জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। হালিমা স্বামী মারা যাবার পর আফেজ নপ্তিসহ অন্যান্যরা হালিমা বেগমের জমি জোরপূর্বক দখল নেয়ার চেস্টা চালিয়ে আসছে।

এ নিয়ে ঘটনার দিন শনিবার সকালে হালিমার সাথে আফেজসহ অন্যান্যদের কথা কাটাকাটি হয়। এরই জের ধরে স্থানীয় ভূমিদস্যু ও আনসার ভিডিপি’র সদস্য রিপনের ইন্ধনে আফেজ নপ্তি ও তার ছেলে আমিন নপ্তি, ফারুক নপ্তি, কাশেম নপ্তিসহ ১০/১২ জন সন্ত্রাসী অতর্কিত হামলা চালিয়ে হালিমা বেগমকে পিটিয়ে আহত করে। তার ডাকচিৎকারে মেয়ে পারুল বেগম ও গোলেনুর বেগম এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা তাদেরকেও পিটিয়ে আহত করে। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে তাৎক্ষনিক বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করেন।

আরো জানা যায়, দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে পৈতৃক সূত্রে ওই জমি হালিমার পরিবার ভোগ দখল করে আছে। কিন্তু সম্প্রতি চাচা শ্বশুড় আফেজসহ অন্যান্যরা ওই ভোগদখল করার জন্য মরিয়া হয়ে ওঠে।

এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে আহতের স্বজনরা জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here