হাতুরে ডাক্তার সুনীল সরকারের ভুল চিকিৎসায় দীর্ঘ ষোল দিন যাবত মৃত্যুর সাথে লড়াই করে অবশেষে মৃতুর কাছে হার মানতে হল বরিশালের গৌরনদী উপজেলার ধুরিয়াইল গ্রামের সৈয়দ হাওলাদার (৫৫) নামের এক গাছ কাটা শ্রমিকের।

বৃহস্পতিবার (৩রা অক্টোবর) সকালে শেবাচিম হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

জানা গেছে, গত কয়েকদিন দিন পূর্বে নন্দনপট্টি গ্রামের নজরুল হাওলাদারের বাড়িতে গাছ কাটতে যান ধুরিয়াইল গ্রামের সৈয়দ হাওলাদার। এক পর্যায়ে তার (সৈয়দ) মাথায় সুপারি গাছ পরে আঘাতপ্রাপ্ত হন। পরে তার সঙ্গে থাকা গাছ কাটা শ্রমিকরা তাৎক্ষনিক ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার জন্য টরকী বন্দরের পল্লী চিকিৎসক সুনীল সরকারের কাছে নিয়ে আসেন।

মৃত সৈয়দ হাওলাদারের সঙ্গে থাকা গাছ কাটা শ্রমিকরা জানান, পল্লী চিকিৎসক সুনীলের কাছে সৈয়দ হাওলাদারকে নিয়ে আসার পর রোগীকে অন্যত্র স্থানান্তর না করে মাথায় তিনটি সেলাই দিয়ে দুইদিন অপচিকিৎসা করে। এরপর তার (সৈয়দ) অবস্থার অবনতি হলে শেরই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে দীর্ঘ ষোলদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর বৃহস্পতিবার সকালে তার মৃত্যু হয়। অপচিকিৎসা দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন পল্লী চিকিৎসক সুনীল। তবে এ বিষয়ে নিহতের পরিবারের কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

গৌরনদী মডেল থানার ওসি তদন্ত মাহবুবুর রহমান জানান, খবর পেয়ে নিহতের বাড়ীতে পুলিশ পাঠানো হয়। এ বিষয়ে নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ না করায় লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here