বর্নাঢ্য নানা আয়োজনের মধ্যে দিয়ে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উদযাপিত হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮ম বর্ষপূর্তি (বিশ্ববিদ্যালয় দিবস) উপলক্ষে শুক্রবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৯টায় প্রশাসনিক ভবনের সামনে জাতীয় সঙ্গীতের সঙ্গে জাতীয় এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা উত্তোলন করেন উপাচার্য প্রফেসর ড. এসএম ইমামুল হক।

পতাকা উত্তোলন শেষে বেলুন-ফেস্টুন উড়িয়ে বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের উদ্বোধন করেন তিনি। পরে সেখান থেকে একটি বর্নাঢ্য আনন্দ র‌্যালি বের হয়। র‌্যালির নেতৃত্ব দেন উপাচার্য্য প্রফেসর ড. এসএম ইমামুল হক। বিশেষ অতিথি ছিলেন সিন্ডিকেট সদস্য বিভাগীয় কমিশনার রাম চন্দ্র দাস ও ডিজিএফআই’র কর্নেল জিএস জিএম শরিফুল ইসলাম।

র‌্যালিটি বরিশাল-কুয়াকাটা মহাসড়ক এবং বরিশাল-ভোলা সড়ক প্রদক্ষিণ করে ফের ক্যাম্পাসে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার, সিন্ডিকেট সদস্যবৃন্দ, বিভিন্ন অনুষদের ডিন, রেজিস্ট্রার, প্রক্টর, বিভাগীয় প্রধানগণ, প্রভোস্টবৃন্দ, পরিচালকবৃন্দ, ছাত্র উপদেষ্টাবৃন্দ, শিক্ষকমন্ডলী, দপ্তর প্রধানগণ, কর্মকর্তাবৃন্দ, শিক্ষার্থীবৃন্দ এবং ২৪টি বিভাগ ও ৩টি হলের বিএনসিসি সেনা ও নৌ শাখা, রোভার স্কাউটসহ কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।’

এ সময় উপচার্য বলেন, ইতিমধ্যেই বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ধূমপান, মাদক, র‌্যাগিং, জঙ্গি এবং রাজাকারমুক্ত ঘোষণা করা হয়েছে। শিক্ষার্থীরা যেন এই আদর্শ নিয়ে এগিয়ে যায়। বাংলাদেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে শিক্ষার্থীরা যাতে নিজেদের যোগ্য ও উপযুক্ত হিসেবে গড়ে উঠতে পারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার দিবসে সেই আহ্বান জানান তিনি।

অনুষ্ঠানের ২য় পর্বে বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তমে ১ম বর্ষ স্নাতক (সম্মান) শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ওরিয়েন্টেশন এবং বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের আলোচনা সভার আয়োজনের পাশাপাশি মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

২০১১ সালের এই দিনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। এরপর থেকে এই দিনটি বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস হিসেবে পালন করছে কর্তৃপক্ষ।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here