বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের জোংড়ার খাল এলাকায় র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে বনদস্যু আরিফ বাহিনীর প্রধান আরিফুল ওরফে রাজুসহ চার বনদস্যু নিহত হয়েছেন। সোমবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১২টার দিকে সুন্দরবনের জোংড়ার খাল এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

র‌্যাব-৮ এর অধিনায়ক আতিকা ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সম্পতি সুন্দরবনে বনদস্যুদের তৎপরতা দেখা গেছে- এমন খবরের ভিত্তিতে রোববার রাতে সুন্দরবনে অভিযান শুরু করে র‌্যাব। সোমবার বেলা ১২টার দিকে র‌্যাব সদস্যরা পূর্ব সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের জোংড়ার খাল এলাকায় টহল শুরু করলে বনদস্যু আরিফুল বাহিনী তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়তে থাকে। র‌্যাবও পাল্টা গুলি ছুড়তে থাকে। ঘণ্টাব্যাপী বন্দুকযুদ্ধের পর দস্যুরা পিছু হটে। পরে র‌্যাব সদস্যরা ওই এলাকায় তল্লাশি চালিয়ে আরিফ বাহিনীর প্রধানসহ চার দস্যুর মরদেহ উদ্ধার করে। এ সময় দস্যুদের ব্যবহৃত বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়।

তবে উদ্ধার করা অস্ত্রের পরিমাণ জানা যায়নি। এ ব্যাপারে পরে প্রেস ব্রিফিং করে বিস্তারিত জানানো হবে বলে র‌্যাব জানিয়েছে।

বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে- নিহত দস্যুরা হলেন- মোংলার সিগনাল টাওয়ারের দক্ষিণ চরের আ. আউয়ালের ছেলে আ. আলিম (২৫), আবজাল হাওলাদারের ছেলে রাজু (২২), আলতাফ হাওলাদারের ছেলে সোহেল (৩০) ও রুবেল (২৫)।’’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here