বরিশাল সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনী গন সংযোগ ও নগরবাশীর কাছে ওয়াদা করা বরিশাল নগরীকে একটি শিশু বান্ধব শহর ও শিশুদের চিত্র বিনোধনের জন্য শিশু পার্ক নির্মান করা।

কর্পোরেশনের দায়ীত্বভার গ্রহনের ৭ মাসের মাথায় বরিশাল নগরীর আমানতগঞ্জ ও ভাটিখানা সহ ৩টি ওয়ার্ডের মধ্যবিত্ত সিমানায় টিবি হাসপাতাল এলাকায় শহীদ সুকান্ত বাবু শিশু পার্ক উদ্বোধনের মাধ্যমে নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পুরন করলেন বরিশাল সিটির তরুন মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ।

মঙ্গলবার (৪ইজুন) বিকাল ৫টায় বৈরী আবহাওয়া ও বৃষ্টি উপেক্ষা করে শিশুদের চিত্র বিনোধন ও ঈদ-উৎসবে আনন্দ করার জন্য একদিন পূর্বেই ফলক উম্মোচন দোয়া-মোনাজাত ও ফিতা কেটে শহীদ সুকান্ত বাবু শিশু পার্কের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের মাধ্যমে উন্মুক্ত করেদিলেন মেয়র।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রালয়ের বিশেষ বরাদ্বে ও বিসিসি’র বাস্তবায়নে এখানে শিশুদের আনন্দ ও চিত্র বিনোধনের জন্য স্থাপন করা হয়েছে কার্পেটিং যুক্ত ঘাষ, চায়না থেকে আমদানীকৃর্ত ডিটু বড় খেলনা,ক্লাইমবার,ডোম,সুইং দোলনা, ড্রাগন,ডলফিন,রকি চেয়ার, রাউন্ড হর্স সহ গাছে গাছে এল.এডি লাইট ও সোলার লাইট।

৪১ দশমিক ৩২ শতাংশ জমির উপর নির্মিত সুকান্ত বাবু পার্কটিতে একসাথে ১ শত ৫০ জন শিশু চিত্রবিনোধনের সুযোগ রয়েছে। এছাড়া পার্কের চারদিকে রয়েছে ঘেড়াও করা বাউন্ডডারি দেয়াল।

একাজ সম্পূর্ণ করার ক্ষেত্রে সর্বক্ষন দায়ীত্ব পালনকারী বিসিসি সহকারী প্রকৌশলী মামুন অর-রশিদ জানান,শহীদ সুকান্ত বাবু শিশু পার্কটি সম্পূর্ণ করতে প্রায় ১ বছর সময় লেগেছে।

একাজে ব্যয় হয়েছে ২ কোটি ১৫ লক্ষ ৫২ হাজার ২শত ৬৬ টাকা। ১৮ সালের ২৭ই মার্চ টেন্ডারের মাধ্যমে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স এন্টার প্রাউজ কর্নধার নঈমুল হক মাসুদ একাজটি সম্পূর্ণ করেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন বিসিসি প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা খায়রুল হাসান, প্রধান প্রকৌশলী মোঃ নুরুল ইসলাম,নির্বাহী প্রকৌশলী ওমর ফারুক, প্রশাসনিক কর্মকর্তা স্বপন কুমার দাস,জন সংযোগ কর্মকর্তা বেলায়েত হোসেন বাবলু,১নং প্যানেল মেয়র এ্যাড. রফিকুল ইসলাম খোকন, ৩নং প্যানেল মেয়র আয়শা তৌহিদা লুনা,স্থানীয় কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলাম বাদশা, ৫ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ কেফায়েত হোসেন রনি,৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর খাঁন মোঃ জামাল হোসেন, কাউন্সিলর ফরিদ হোসেন,সংরক্ষিত কাউন্সিলর জাহানারা বেগম,কহিনুর বেগম,।

এসময় আরো ছিলেন বরিশাল সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও বরিশাল মহানগর সহ-সভাপতি আলহাজ্ব সাইদুর রহমান রিন্টু,বরিশাল মহানগর আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক এ্যাড. এ.কে এম জাহাঙ্গির হোসাইন,সাংস্কৃতিক ব্যাক্তি সৈয়দ দুলাল,যুগান্তর বরিশাল ব্যুরো প্রধান আখতার ফারুক শাহিন, এ্যাড. রাজিব সহ স্থানীয় ও বিভিন্ন ওয়ার্ডের আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।

এসময় সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ্ এক প্রশ্নের উত্তরে বলেন, এখানে শিশুদের বিনোধনের জন্য কর্পোরেশন থেকে কোন ধরনের টিকিটের ব্যবস্থা রাখা হয়নি।

নগরীর শিশুদের জন্য থাকবে সম্পূর্ণ ভাবে উন্মুক্ত। রক্ষাবেক্ষনের দায়ীত্ব পালন করবে বিসিসি।

পরে মেয়র বিসিসি’র বিভিন্ন কর্মকর্তা ও দলীয় নেতৃবৃন্দদেরকে সাথে পার্কের ভিতর পারদর্শন করেন এসময় মেয়রের সাথে তার শিশু পুত্র সাথে ছিলেন।

দীঘদিন যাবত বরিশাল নগরকে একটি শিশু বান্ধব শহর গড়ে তোলার দাবী ছিল নগরবাশীর শহীদ সুকান্ত বাবু পার্কের মাধ্যমে কিছুটা হলেও নগরবাশীর আকাংক্ষা পুরন করতে সক্ষমতার পরিচয় দিয়েছে মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ।

উল্লেখ্য ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট কালো রাতে একদল বিপদগামী সেনাদের গুলিতে তৎকালীন ভূমিমন্ত্রী শহীদ আৎ রব সেরনিয়াবাতের বড়পুত্র আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ্ বড় পুত্র ও মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ্ ’র বড় সহদর সুকান্ত বাবু গুলিতে শহীদ হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here