ঈদ উপলক্ষে পরিবারের সবার সঙ্গে ঈদ করতে ঢাকা থেকে  লঞ্চযোগে বরিশাল আসে ছোট্ট মিম। কিন্তু লঞ্চ থেকে নেমে বাবাকে হারিয়ে ফেলে মেয়েটি। মধ্যরাতে বাবাকে হারিয়ে কান্না করতে দেখে মেয়েটিকে কাছে নিয়ে সব খোঁজখবর নেন বরিশালের সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ।

পরে এই ঘটনায় মেয়রের নির্দেশে মাইকিং করা হয়। এক পর্যায়ে মিমের বাবা ছুটে আসেন। কোলে তুলে নেন আদরের ধনকে। মিম ফিরে পায় তার প্রিয় বাবাকে।

ঘটনাটি ঘটেছে বরিশাল লঞ্চঘাট এলাকায়। রবিবার ফেসবুক পোস্টে একথা জানান মেয়র নিজেই।

ঈদে দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের বাড়ি ফেরার অন্যতম মাধ্যম লঞ্চ। প্রতি ঈদেই যাত্রীর চাপ থাকায় বাড়তি ট্রিপের আশায় স্বাভাবিকের থেকে বেশি গতিতে ঢাকা থেকে গন্তব্যে যায় লঞ্চগুলো। ফলে বরিশালের বিলাসবহুল লঞ্চগুলো কখনো মধ্যরাতে আবার কখনো শেষ রাতে ঘাটে নোঙর করে।

কিন্তু নেমেই পড়তে হয় বিড়ম্বনায়। কারণ ঘাট থেকে অটো, রিকশাসহ সব ধরনের পরিবহন নিয়মিত ভাড়া থেকে কয়েকগুণ টাকা নেয়। এ নিয়ে অপ্রীতিকর ঘটনাও ঘটে। যে কারণে এবার অসাধু এসব মোটর শ্রমিকের হাত থেকে ঘরমুখো মানুষকে মুক্তি দিতে মাঠে নেমেছেন বরিশালের সিটি মেয়র সাদিক।

নিজের ফেসবুকে পোস্টে মিমকে কোলে নিয়ে বসা একটা ছবি পোস্ট করেন মেয়র সাদিক আব্দুল্লাহ। তাতে তিনি লেখেন, মধ্যরাতে লঞ্চ থেকে নেমে ভিড়ের মধ্যে হারিয়ে যায় মিম। কাঁদতে দেখে কোলে নিয়ে জিজ্ঞেস করলে শিশুটি তার বাবা-মায়ের নাম বলে। পরে বিসিসির কেন্দ্রীয় মাইকের ঘোষণা শুনে তার বাবা এলে দিয়ে দেয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here